How To Become a TC Collector – ‘টিকিট কালেক্টর’ হতে চান? জানুন, চাকরির যোগ্যতা থেকে বেতন কিংবা বয়সসীমা।

WhatsApp Group Join Now
Telegram Group Join Now

How To Become a TC Collector – ভারতীয় রেলের বিভিন্ন সম্মানজনক পদগুলির মধ্যে অন্যতম একটি হলো টিকিট কালেক্টর। প্রত্যেক বছর প্রচুর সংখ্যক কর্মখালি বের হয় ভারতীয় রেলে টিকিট কালেক্টর পদে নিয়োগের জন্য। এই পদে চাকরি করার জন্য প্রচুর চাকরিপ্রার্থী ফরম ফিলাপ করেন এবং পরীক্ষা দেন।

তবে টিকিট কালেক্টর পদে চাকরির বিষয়ে সঠিক ধারণা না থাকার জন্য পিছিয়ে পড়েন অনেকেই। তাই টিকিট কালেক্টর পদে চাকরির পরীক্ষা দেওয়ার আগে এই চাকরির যোগ্যতা থেকে শুরু করে বয়স সীমা সবটাই জেনে নিন আজকের প্রতিবেদনে।

টিকিট কালেক্টর পদে চাকরির (How To Become a TC Collector) জন্য পরীক্ষা দিয়ে উত্তীর্ণ হতে পারলেই কিন্তু চাকরি পাওয়া যায়। একবার চাকরি পেলে প্রচুর সুযোগ সুবিধাও থাকে।

পদের নাম – রেলওয়ে টিকিট কালেক্টর (TC)

বেতন কাঠামো

প্রতি মাসে ৯,৩০০/- টাকা থেকে শুরু করে ৩৪,৮০০/- টাকার মধ্যে বেতন দেওয়া হয় টিকিট কালেক্টরদের। পাশাপাশি ৪ হাজার ৬০০ টাকার গ্রেড পে পেয়ে থাকেন।

শিক্ষাগত যোগ্যতা (How To Become a TC Collector)

মাধ্যমিক পরীক্ষায় কমপক্ষে পঞ্চাশ শতাংশ নম্বর থাকলে টিকিট কালেক্টর পদে আবেদন করতে পারবেন। উচ্চ শিক্ষিতেরাও আবেদনের যোগ্য।

বয়সসীমা

টিকিট কালেক্টর পদে আবেদন (How To Become a TC Collector) করতে হলে ১৮ থেকে ২৭ বছরের মধ্যে বয়স হতে হবে আবেদন কারীদের। সেক্ষেত্রে তপশিলি জাতি উপজাতিভুক্ত শ্রেণীর আবেদনকারীদের ক্ষেত্রে বয়স হতে হবে ১৮ থেকে ৩২ বছর এবং ওবিসিদের ক্ষেত্রে ১৮ থেকে ৩০ বছর।

নিয়োগ প্রক্রিয়া

বেশ কিছু ধাপে টিকিট কালেক্টর পদের জন্য নিয়োগ প্রক্রিয়া সম্পন্ন হয়ে থাকে। প্রথমে লিখিত পরীক্ষা হয়। লিখিত পরীক্ষায় পাশ করার পর ইন্টারভিউ এবং ডকুমেন্ট ভেরিফিকেশন করা হয়। তারপরে হয় মেডিকেল টেস্ট।

RPF কনস্টেবল হতে চান? RPF এর মাসিক বেতন? সবটাই জানুন এই প্রতিবেদনে

পরীক্ষার সিলেবাস (How To Become a TC Collector)

রেলওয়ে টিকিট কালেক্টর পদে চাকরির জন্য ১২০ নম্বরে লিখিত পরীক্ষা নেওয়া হয়, সময় থাকে ৯০ মিনিট। কোন সিলেবাসের উপর ভিত্তি করে পরীক্ষা নেওয়া হয় দেখে নিন:

১) General Awareness – ২৫টি প্রশ্ন ২৫ নম্বরের।
২) General Intelligence and Reasoning – ১৫ টি প্রশ্ন ১৫ নম্বর।
৩) Arithmetic – ২০টি প্রশ্ন ২০ নম্বরের।
৪) Technical Ability – ৩০ টি প্রশ্ন ৩০ নম্বরের।
৪) General Science – ৩০ টি প্রশ্ন ৩০ নম্বরের।

টিকিট কালেক্টর পদে চাকরির সুবিধা

রেলের চাকরিতে এমন দুর্দান্ত কিছু সুযোগ সুবিধা পাওয়া যায় যেগুলো সব সরকারি চাকরিতে পাওয়া যায় না। রেলওয়ে টিকিট কালেক্টর পদে চাকরি পাওয়ার পর প্রভিডেন্ট ফান্ড, গ্রাজুইটি,মেডিকেল ফেসিলিটি, রেলওয়ে পাশ পাওয়া যায়।

সিআইডি (CID) হতে চান? কীভাবে হবেন সিআইডি? রইলো বিস্তারিত।